২০০ রো’গীর ৫ কোটি টা’কা মও’কুফ করে দি’লেন মুস’লিম চিকি’ৎসক |

ক’রোনা মহা’মারির মধ্যেই মান’বিকতার এক অনন্য নজির স্থা’পণ কর’লেন মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রের এক মুসলিম চিকি’ৎসক।ওমর আতিক নামের পাকি’স্তানি বং’শোদ্ভূত এই চিকিৎ’সক ক্যান’সার রোগী’দের বাঁচি’য়ে তোলাই শুধু নয়, ২০০ জন রোগীর ব’কেয়া প্রায় ৬ লাখ ৫০ হাজার ডলার জানা গিয়েছে, ক্যান’সার বিশেষজ্ঞ ওমর আতিক দীর্ঘ’দিন ধ’রেই বহু রো’গীকে সু’স্থ করে’ছেন।

কিন্তু অনেকের কাছেই টাকা পেতেন তিনি।এরপর স’ম্প্রতি নিজের ক্লিনিক ব’ন্ধের সি’দ্ধান্ত নেন। কিন্তু হিসাব করতে যেয়ে দেখেন, রোগীদের কাছে তার বকেয়া টাকার পরিমাণ সাড়ে ৬ লাখ ডলারেরও বেশি।এরপরই এই মান’বিক সি’দ্ধান্ত নেন আতিক। প্রায় ২০০ জন রোগীর বিল মও’কুফ করার সি’দ্ধান্ত গ্র’হণ করেন তিনি।

উল্টো যাদের বিল ব’কেয়া ছিল, তাদের ক্রিস’মাসের একটি গ্রিটিংস কার্ড পাঠান। তাতে জানান যে, তার আরকানসাস ক্যান’সার ক্লিনিক টি এবার ব’ন্ধ হতে চলেছে।যে যে রোগী’দের ব’কেয়া রয়েছে তা আর মেটা’নোর প্রয়ো’জন নেই।

তার এই খবর প্রকাশ্যে আসতেই অনেকেই ওমর আতিকের এই পদ’ক্ষেপকে শ্র’দ্ধা জানান।সো’শ্যাল মিডি’য়ায় প্রত্যেকেই তাকে প্রশং’সায় ভ’রিয়ে দিয়ে’ছেন। খুশি ওই রোগী’দের পরিবারের লোকজনও। পরবর্তীতে এক সাক্ষা’ৎকারে তিনি বলেন,

‘আসলে আমি বুঝতে পেরে’ছিলাম, এমন অনেকেই আছেন যারা এই ব’কেয়া অর্থ দিতে পার’বেন না।তাই আমি এবং আমার স্ত্রী আলো’চনা করে এই ব’কেয়া অর্থ না নেয়ার ব্যা’পারে সি’দ্ধান্ত নিই।’ সূত্র: গালফ টুডে।

কোন জিনিসের গ’ন্ধ পেলে না’রীদের উ’ত্তেজনা বে’ড়ে যায় ১০০ গুন যে জিনিসের গ’ন্ধ পেলে না’রীদের উ’ত্তেজনা বে’ড়ে যায় ১০০ গুন- সু’খদায়ক বা স্যাটিস্ফায়িং একটি যৌ’ন মি’লনের প্রথম শর্ত হচ্ছে আপনার পার্ট’নারের প্রতি শ্রদ্ধা’শীল হওয়া।

আপনি যে আ’নন্দ পাচ্ছেন সেও ততটুকূ আ’নন্দ পাচ্ছেন কী না তা যখন আপনি নিশ্চিত করতে উৎ’সাহিত হবেন, তখনই যৌ’নমি’লন আপনে আপ স্যাটিস্ফায়িং হবে।

না’রী কিছুটা উৎ’পীড়িত হ’তে চায় যৌ’ন মি’লনে- তাই মনো’বিজ্ঞান স্বীকা’র করে যে, পুরু’ষ কিছুটা উৎ’পীড়ন করতে পারে না’রীকে। কিন্তু প্রহর’ণ ঠিক শৃঙ্গার নয়-কারণ মি’লনের আগে এর প্রয়োজন নেই।

জল হ্যালিডে এবং নোয়া সোল নামে দুই বিজ্ঞানী এই বিশেষ ছ’ত্রাকটি আবি’ষ্কার করেন।তাঁরা জানিয়েছেন,এই বিশেষ ছ’ত্রাকের গ’ন্ধ কোনও ম’হিলার নাকে যাওয়া মাত্রই তিনি প্রচ’ণ্ডভাবে উ’ত্তেজিত হয়ে পড়েন।

ইন্টারন্যাশনাল জার্নাল অফ মেডিসিনাল মাশরুম পত্রিকাতেও একথা দাবি করা হয়েছে যে এই বিশেষ ছ’ত্রাকে একধরনের গ’ন্ধ থাকে যা থেকেই ম’হিলাদের চটদলদি যৌ’ন উ’ত্তেজনা বৃ’দ্ধি পায়।

হঠাৎ শা’রীরিক মি’লন ব’ন্ধ করলে মে’য়েদের যা হয়, সকল ছে’লেদের জানা উচিৎ স্বামী-বিয়োগ, বিবাহ-বি’চ্ছেদ, বা অন্য শহরে চাকরি,

এধরনের নানাবিধ কারণে মি`লন’তা হা’রিয়ে যেতে পারে না’রীর থেকে।এতে অনেক সময় ক্ষ’তিগ্র’স্থ হয় না’রী শরীর। মা’নসিক দিক থেকে সুখ ও শান্তি চলে যায়।