ফের ওয়েব সিরিজের জোয়ার


কয়েক বছর ধরে দেশে ওয়েব সিরিজ নির্মাণের হিড়িক পড়লেও অশ্লীলতার অভিযোগে চলতি বছরের শুরুর দিকে ভাটা পড়ে এই কনটেন্টে। এর মধ্যে করোনার থাবায় মার্চ থেকে বন্ধ হয়ে যায় সব ধরনের শুটিং। টানা কয়েক মাস লকডাউনের পর জুন থেকে অনুমতি মেলে শুটিংয়ের। নাটক-সিনেমার মতো শুটিং চলছে ওয়েব সিরিজের। নির্মাতা ও অভিনয়শিল্পীরাও নতুন করে কাজ শুরু করেছেন এই পস্ন্যাটফরমে। ইতোমধ্যে কয়েকজন তারকা বিভিন্ন ওয়েব সিরিজে অভিনয় করেছেন।

আলোচিত অভিনেত্রী অপর্ণা ঘোষ সম্প্রতি একটি ওয়েব সিরিজে কাজ করেছেন। ‘সুন্দরী’ শিরোনামের এ ওয়েব সিরিজটি সুন্দরী প্রতিযোগিতার গল্প নিয়ে নির্মিত হয়েছে। এটি প্রচারিত হবে বায়োস্কোপে। তিন পর্বের সিরিজটি পরিচালনা করছেন নির্মাতা সিদ্দিক আহমেদ। ওয়েব সিরিজটি প্রসঙ্গে অপর্ণা বলেন, ‘সিরিজটির শুটিং শেষ করেছি। এখানে দর্শক নতুন আঙ্গিকে দেখবেন আমাকে। গল্পটি অসাধারণ, বেশ চমক থাকবে।’ অপর্ণা ঘোষ ছাড়াও ওয়েব সিরিজটিতে অভিনয় করছেন এফএস নাঈম, দোয়েল ম্যাশ, আইরিন আফরোজ প্রমুখ। তরুণ নাট্যনির্মাতা তৌহিদ আশরাফ। ‘শোবার ঘর’ নামের ওয়েব সিরিজ নিয়ে নির্মাণ শুরু করেছিলেন। সে সময় এই সিরিজ নিয়ে দেশজুড়ে ব্যাপক আলোচনা-সমালোচনা হয়। এবার এ নির্মাতা নির্মাণ করছেন নতুন আরেকটি ওয়েব সিরিজ নাম ‘ঢাকা-১২০৯’। ঢাকা শহরের রোজকার জীবনের গল্প নিয়ে নির্মিত ওয়েব সিরিজ ‘ঢাকা ১২০৯’। নগর জীবনের বিচিত্র সব ঘটনা চিত্রায়িত হয়েছে এই সিরিজে। সম্প্রতি অনলাইনে মুক্তি পেয়েছে ‘ঢাকা-১২০৯’ ওয়েব সিরিজের অফিসিয়াল ট্রেলার। আর তাতে মুগ্ধ বিনোদনপ্রেমী মানুষেরা। কমেন্টস যার সবটাই প্রশংসাবাক্য। ওয়েব সিরিজে উঠে এসেছে সামাজিক প্রেক্ষাপট। নেশাগ্রস্ত তরুণ মূল আকর্ষণ। ১ মিনিট ৩০ সেকেন্ডের এই ট্রেলারে নির্মাণ ও শিল্পীদের অভিনয়েও নজর কাড়ছে দর্শকদের। জনপ্রিয় নাট্যনির্মাতা মাবরুর রশিদ বান্নাহ’র প্রযোজনায় আন্ডারগ্রাউন্ড ক্রিয়েটিভ ফ্যাক্টরির ইউটিউব চ্যানেলে গতকাল (৫ সেপ্টেম্বর) মুক্তি পেয়েছে ‘ঢাকা ১২০৯’ ওয়েব সিরিজটি। এতে বিভিন্ন চরিত্রে অভিনয় করেছেন তানজিম হাসান অনিক, এফ এইচ শান, মাইম অভিনেতা শাহ পরাণ শুভ্র, লেখক ও চলচ্চিত্র নির্মাতা আহমেদ সাব্বির, চলচ্চিত্র নির্মাতা ইমতিয়াজ সরোয়ার নিলয়, সাগর হুদা, রত্না খান, মিনাক্ষী র?য়, লিয়োনা লুবিয়ানা, স্মৃতি রানী দেবী প্রমুখ। সম্পূর্ণ নতুন ধরনের গল্প বলার ঢং এবং নতুন অভিনয়শিল্পীদের নিয়ে কিছুটা ঝুঁকি মাথায় রেখেই কাজটি করেছেন বলে জানিয়েছেন নির্মাতা তৌহিদ আশরাফ।

প্রথমবারের মতো ওয়েব সিরিজ নির্মাণ করছেন ঢালিউডের খ্যাতনামা পরিচালক শাহীন সুমন। ‘মাফিয়া লেটস পেস্ন’ শিরোনামের এ ওয়েব সিরিজে অভিনয় করেছেন নন্দিত অভিনেতা জাহিদ হাসানসহ নাটক ও চলচ্চিত্রের শিল্পীরা। ১২ আগস্ট নারায়ণগঞ্জে ওয়েব সিরিজটির শুটিং শুরু হয়েছে। আন্ডারওয়ার্ল্ড ও ভালোবাসার গল্পে ১৫০ পর্বে এটি নির্মাণ হবে। শাহীন সুমন বলেন, ‘একসময় চলচ্চিত্রই ছিল মানুষের বিনোদনের অন্যতম মাধ্যম। বর্তমানে বিশ্বে ওয়েব সিরিজের চাহিদা বেড়েছে। যুগের সঙ্গে তাল মিলিয়ে প্রথমবার ওয়েব সিরিজ নির্মাণের সিদ্ধান্ত নিয়েছি।’

মানুষ এখন আর আগের মতো সিনেমা হলে যাচ্ছে না। আবার করোনাকে কেন্দ্র করে সিনেমা হলও বন্ধ রয়েছে। তুলনামূলকভাবে কমেছে চলচ্চিত্র নির্মাণ। তবে ওয়েব সিরিজ ও চলচ্চিত্র একই ঘরানার বলে মনে করেন এই নির্মাতা। নাটকের আলোচিত অভিনেত্রী তানজিন তিশা যুক্ত হলেন ওয়েব সিরিজের সঙ্গে। প্রথমবার অভিনয় করছেন ‘শিকল’ নামের একটি ওয়েব সিরিজে। সেপ্টেম্বরের প্রথম দিন থেকে শুটিং শুরু হয়েছে ‘শিকল’-এর। ৭ সেপ্টেম্বর পর্যন্ত এর শুটিং চলবে। সঞ্জয় সমদ্দার পরিচালিত ওয়েব সিরিজটিতে মুখ্য চরিত্রেই থাকছেন তিশা। এতে তার চরিত্রের নাম ‘নন্দিনী’। নির্মাতা বলেন, শিকল ভাঙার গান কিংবা শিকলে বাঁধা পড়ার এক অসাধারণ নারীর লড়াইয়ের গল্প নিয়েই ‘শিকল’। এটি তানজিন তিশার প্রথম ওয়েব সিরিজ। এতে অন্য এক তিশাকে দেখতে পাবেন দর্শক। এতে তিশার বিপরীতে অভিনয় করছেন শতাব্দী ওয়াদুদ। তিশা জানান, নন্দিনীকে ঘিরেই ওয়েব সিরিজটির গল্প। গ্রামের সহজ-সরল মেয়ে নন্দিনী একদিন শহরে আসে। কিন্তু শহরে তার আশ্রয়দাতা তাকে হেনস্তা করে। সেখান থেকে নন্দিনী পালিয়ে এসে একটি অফিসে চাকরি নেয়। একসময় অফিসের সহকর্মীর সঙ্গে তার বিয়ে হয়। কিন্তু আগের কথা জেনে ছেলেটি নন্দিনীকে ছেড়ে চলে যায়। ঘটনাচক্রে নন্দিনীকে যেতে হয় জেলেও। এভাবে জীবনের নানা বাঁক পেরিয়ে একদিন সে হয়ে ওঠে চলচ্চিত্রের দেশসেরা নায়িকা। মূলত গল্পের কারণেই ওয়েব সিরিজটিতে কাজ করতে রাজি হয়েছেন তিশা। বলেন, গল্পটা পড়ে ভালো লেগেছে। এক গল্পে একজন নারীর এতগুলো চরিত্র! লোভ সামলাতে পারিনি। তাই অভিনয় করা।