নষ্ট দুধের পানি কাজে লাগানোর উপায়

নষ্ট দুধ থেকে উপজাত হিসেবে পাওয়া পানিও ব্যবহার করা সম্ভব।
দুধ নষ্ট যাওয়াকে দুধ ভেঙে যাওয়া, ফেটে যাওয়া, টক হয়ে যাওয়া ইত্যাদি নাম দেওয়া হয়।
এই নষ্ট দুধ থেকে যে পানি তৈরি হয়, সেটা স্বাস্থের জন্য উপকারী। আর উপকারী হওয়ার মূল কারণ হল এতে নেই কোনো প্রক্রিয়াজাতকরণ এবং তা তৈরি হয় ঘরেই।
খাদ্য ও পুষ্টি-বিষয়ক একটি ওয়েবসাইটে প্রকাশিত প্রতিবেদনের আলোকে জানানো হলো কীভাবে তা কাজে লাগানো যায় সে সম্পর্কে।

রুটি তৈরিতে: রুটির জন্য আটা মাখতে বা ‘ডো’ তৈরি করতে সবাই হয়ত সাধারণ পানি ব্যবহার করেন। তবে এই কাজে ব্যবহার করা যায় নষ্ট দুধের ছেড়ে দেওয়া পানি। এতে করে ওই পানিতে থাকা পুষ্টিগুণও আপনার শরীরে পৌঁছাবে স্বাস্থ্যকরভাবে। পাশাপাশি এই পানি ব্যবহারের কারণে রুটি আরও বেশি নরম হয়।

সবজি রান্নায়: সবজির পদ রান্নায় ঝোল বা ‘ব্রথ’ তৈরিতে কাজে লাগাতে পারেন নষ্ট দুধের পানি। এতে পদটির স্বাদে যেমন ভিন্নতা আসবে তেমনি স্বাস্থ্যগুণও বাড়বে। ডাল রান্নাতেও ওই পানি ব্যবহার করতে পারেন, তাতে স্বাদ বাড়বে।

ভাত রান্নায়: ভাত রান্না করতেও নষ্ট দুধের পানি ব্যবহার করতে পারেন। পুরোটাই দুধের পানি নিতে পারেন কিংবা সঙ্গে মেশাতে পারেন সাধারণ পানি। এতে ভাতের স্বাদে যোগ হবে ভিন্ন মাত্রা, বাড়বে পুষ্টিগুণ বিশেষ করে প্রোটিনের মাত্রা। নুডুলস সিদ্ধ করতেও দুধের পানি ব্যবহার করতে পারেন।

অনেকটা দুধ নষ্ট হয়ে গেলে ঘরের সবারই কিছুটা মন খারাপ হয়ে যায়। তবে তা ফেলে না দিয়ে এভাবে কাজে লাগানোর চেষ্টা করলে পুষ্টি উপাদান হারাবেন না, পয়সাও উসুল হবে।