জুসের বোতলে কীটনাশক খাইয়ে স্ত্রীকে হত্যা

পাবনার চাটমোহরে জুসের বোতলে কীটনাশক মিশিয়ে স্ত্রীকে খাইয়ে হত্যার অভিযোগ উঠেছে স্বামীর বিরুদ্ধে। এ ঘটনায় পুলিশ অভিযুক্ত স্বামীকে আটক করেছে।

আজ মঙ্গলবার ভোরে উপজেলার মূলগ্রাম ইউনিয়নের জগতলা গ্রামে ঘটনাটি ঘটেছে।

মৃত গৃহবধূর নাম আরিফা খাতুন (১৮)। তিনি একই গ্রামের মৃত আব্দুল আজিজের মেয়ে ও পাশ্ববর্তী আটঘরিয়া উপজেলার চাঁদভা ইউনিয়নের ভবানীপুর গ্রামের বাহাজ উদ্দিনের ছেলে রুবেল হোসেনের স্ত্রী।

খোঁজ নিয়ে জানা গেছে, ৬ মাস আগে প্রেমের সম্পর্কের মাধ্যমে আরিফাকে বিয়ে করে রুবেল হোসেন। কিন্তু ছেলের পরিবার প্রথম থেকেই মেয়েটিকে নানাভাবে নির্যাতন শুরু করে। ছেলের পরিবার যৌতুকের জন্য মেয়েটিকে বিভিন্নভাবে চাপ দিতে থাকে। মেয়েটি প্রেম করে বিয়ে করেছে বলে বাবার বাড়িতে বিষয়টি বলতে অপারগতা প্রকাশ করে।

এর পরিপ্রেক্ষিতে গত ২৫ আগস্ট রাতে ছেলের পরিবারের সদস্যরা জুসের বোতলে কীটনাশক মিশিয়ে আরিফাকে খাওয়ান। পরে সকালে তাকে অসুস্থ অবস্থায় স্থানীয় চিকিৎসকের নিকট নেওয়ার পরে সেখান থেকে পাবনা জেনারেল হাসপাতাল নেওয়া হয়। এরপর রাজশাহী মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে নিয়ে গেলে চিকিৎসক রোগীর অবস্থা আশঙ্কাজনক দেখে বাড়িতে নিয়ে যাওয়ার পরামর্শ দেন। বাড়িতে নিয়ে আসার পরে পাঁচ দিন মেয়েটি যন্ত্রণায় ছটফট করে অবশেষে আজ ভোরে মারা যায়।

চাটমোহর থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মো. আমিনুল ইসলাম বলেন, ‘গৃহবধূর স্বামীকে আটক করা হয়েছে। লাশ উদ্ধার করে ময়নাতদন্তের জন্য পাবনা মর্গে পাঠানো হয়েছে।’